মটরশুঁটির পুষ্টিগুণ

মটরশুঁটি হলো লেগিউম জাতীয় উদ্ভিদ এর গোলাকার বীজ। প্রতিটি মটরশুঁটির মধ্যে বেশ কয়েকটি বীজ থাকে। যদিও এটি এক প্রকারের ফল, এটি মূলত সবজি হিসাবে রান্নায় ব্যবহৃত হয়।

একটি একবর্ষজীবী উদ্ভিদ। এটি বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে শীত মৌসুমে চাষ করা হয়ে থাকে। গড়ে প্রতিটি মটরশুঁটির ওজন ০.১ হতে ০.৩৬ গ্রাম। মটরশুটির বীজকে সবজি হিসাবে তাজা, জমাটবাঁধা, অথবা ক্যানে ভর্তি করে পরে রান্নায় ব্যবহার করা হয়। ছোট ছোট সবুজ দানার মটরশুঁটি, খাবারের স্বাদ বাড়াতে এর তুলনা হয় না। এই সবুজ দানাগুলোকে আমরা সবজি হিসেবেই চিনি।

যে কোন সবজি ভাজি, তরকারি, সালাদ, মাছ ভুনা, পোলাও, নুডলস, ইত্যাদি অনেক ধরনের রান্নাতেই হয় এর ব্যবহার। জনপ্রিয় এই মটরশুঁটির পুষ্টিগুণ অনেক। এতে কার্বোহাইড্রেট, ফ্যাট, প্রোটিন, ক্যালসিয়াম, পটাসিয়াম, ম্যাগনেশিয়াম, আয়রন, ভিটামিন সি, ফলিক অ্যাসিড, বিটাক্যারোটিন, ভিটামিন এ, ফসফরাস, জিঙ্ক, ভিটামিন বি-কমপ্লেক্স ও ভিটামিন কে আছে। মটরশুঁটি আমিষের ভাল উৎস। আপনি যদি নিরামিষ ভোজী হন তাহলে মাছ বা মাংসের বদলে প্রতিদিন মটরশুঁটি খেতে পারেন।

চলুন তাহলে জেনে নেওয়া যাক মটরশুঁটির পুষ্টিগুণ ও উপকারীতাগুলোঃ

(১) মটরশুঁটি আঁশসমৃদ্ধ হওয়ায় দীর্ঘক্ষণ পেট ভরা থাকতে সাহায্য করে। তাছাড়া এতে ক্যালোরির পরিমাণও কম থাকে। এক কাপ মটরশুঁটিতে আনুমানিক ১১৮ ক্যালোরি থাকে। ওজন কমানোর দাওয়াই মটরশুঁটি।

(২) মটরশুঁটির অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ফ্রি র‌্যাডিকেলের ক্ষতি কমায় এবং শরীর থেকে ক্ষতিকর পদার্থ বের করে দেয়।

(৩) মটরশুঁটিতে নিয়াসিন থাকে, যা খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে। মটরশুঁটিতে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রক্তনালী ব্লক হওয়া প্রতিরোধ করে।

(৪) মটরশুঁটিতে ভিটামিন কে থাকে যা ক্যালসিয়াম শোষণে সাহায্য করে, ফলে হাড়ের স্বাস্থ্যের উন্নতিতে সাহায্য করে।

(৫) মটরশুঁটিতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ও অ্যান্টিইনফ্লামেটরি উপাদান থাকে। শরীর সুস্থ্য রাখার পাশাপাশি ক্যান্সারের ঝুঁকি কমাতে সাহায্য করে।

(৬) ফাইবার সমৃদ্ধ মটরশুঁটি পেট পরিষ্কার করে। কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে মুক্ত হতে ফাইবার সমৃদ্ধ মটরশুঁটি বেশ কার‌্যকরী। মটরশুঁটি বিপাকের উন্নতি ঘটায়।

এছাড়াও ফলিক এসিড থাকায় প্রসূতি মায়েরা মটরশুঁটি খেতে পারেন। এতে থাকে প্রচুর আয়রন অ্যানিমিয়া ও ক্লান্তি দূর করতে সাহায্য করে। ত্বকের জন্যও মটরশুঁটি খুব উপকারী কারন এটি ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায়। এই সবজি চোখের দৃষ্টিশক্তিও বাড়াতে সাহায্য করে।