লাকি ব্যাগ

চীনে অনলাইন “লাকি ব্যাগ”-এ পোষা প্রাণী বিক্রয়, অধিকারকর্মীদের নিন্দা

চীনে অনলাইন “লাকি ব্যাগ”-এ পোষা প্রাণী বিক্রয় বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছে। এর মাধ্যমে অনলাইনে পোষা প্রাণীদের বিজ্ঞাপন দেওয়া হয়, এবং গ্রাহকদের কাছে বাক্সের ভেতরে করে প্রাণীগুলো পাঠানো হয়। তবে এ ভাবে ব্যাগে করে প্রাণী বিক্রির নিন্দা জানিয়েছে প্রাণী অধিকারকর্মীরা। তারা এর প্রতিবাদে অনলাইনে প্রতিরোধের ডাক দিয়েছে।

সাউথ চায়না মর্নিং পোস্টের একটি প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, “লাকি ব্যাগ” এর পিছনে ধারণাটি হল গ্রাহকরা তাদের পছন্দ মতো পোষা প্রাণী বেছে নিতে পারেন। তবে এর নির্দিষ্ট জাত, রঙ বা আকার বেছে নিতে পারেননা। তাই গ্রাহকরা বাক্সটি হাতে পাওয়ার আগে জানেন না যে তারা কী কিনেছেন।

ব্রিটিশ দাতব্য সংস্থা, অ্যাক্টএশিয়া এর চীনা শাখার সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও প্রাণী অধিকার বিষয়ক আইনজীবী আইসোবেল জাং এ বিষয়ে সবার কাছে প্রশ্ন রেখে বলেন, “আপনি কি তিন বছরের বাচ্চাকে উপহারের বাক্সে রাখবেন?” তিনি বলেন, “এটি কেবল বিক্রেতাদের দোষ নয়, যারা কিনছেন তদেরও বিবেকের অভাব রয়েছে।”

এসসিএমপি জানিয়েছে এই প্রাণীগুলির ভেতর, কুকুর, বিড়াল, খরগোশ, হামস্টার এবং কচ্ছপ রয়েছে। প্রাণীগুলি ১০ ইউয়ান থেকে শুরু করে এক হাজার ইউয়ান দামের মধ্যে বিক্রি করা হয়। দক্ষিণ চীন শহর শেনজেনে অবস্থিত জাইকাট অ্যানিমাল প্রোটেকশন স্বেচ্ছাসেবক সংস্থার বরাত দিয়ে বলা হয়, স্বল্প খরচ প্রাণীগুলি জন্য উদ্বেগের একটি প্রধান কারণ। দাম কম হওয়ায় গ্রাহকরা প্রাণীগুলির যথাযথ মূল্যায়ন করে না।

এ সংস্থার একজন সদস্য বলেন, “খারাপ প্রক্রিয়াজাতকরণ এবং বাজে কুরিয়ার প্যাকেজ পরিচালনা প্রাণীদের স্থান্তরের পক্ষে মোটেই উপযুক্ত নয়। এটি তাদের জন্য খুব ভীতীকরও হবে।” সূত্র: এএনআই।