ছাত্রীকে যৌন হয়রানি, শিক্ষক গ্রেফতার

সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক উপজেলার গোবিন্দনগর ফজলিয়া ফাজিল মাদ্রাসার এক ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে ওই মাদরাসার শিক্ষক সরকারি রাজেন্দ্রলাল কলেজ ছাত্রশিবিরের সাবেক সভাপতি রাজিবুর রহমানকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

শনিবার (২৮ এপ্রিল) বিকেলে ছাতক থানা পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।ওইদিন দুপুরে রাজিবুলের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করে ছাত্রী। এছাড়া কুপ্রস্তাব ও শারীরিকভাবে লাঞ্ছিতের ঘটনার বিচার না করায় মাদ্রাসার অধ্যক্ষকে ক্লাস রুমে ডুকে লাঞ্ছিত করেছে লায়লা বেগম (ছদ্দ নাম)। এ নিয়ে মাদ্রাসায় উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে ছাতক থানার অফিসার ইনচার্জ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন।

এ ঘটনায় মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিলেট মহানগর জামায়াতে ইসলামীর কর্ম পরিষদ সদস্য মাওলানা আব্দুস সালাম আল মাদানী ও আলিম পরিক্ষার্থী মাদ্রাসার শিক্ষার্থী লায়লা বেগমকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবেদা আফসারীর কাছে উপস্থিত হয়ে পৃথকভাবে বক্তব্য দিয়েছেন। বক্তব্যে ওই শিক্ষার্থী মাদ্রাসার ইংরেজি শিক্ষক সরকারি রাজেন্দ্র কলেজ ছাত্রশিবিরের সাবেক সভাপতি রাজিবুর রহমানকে অভিযুক্ত করেছেন।

এছাড়া অভিযোগ জানিয়েছেন, অভিযুক্ত শিক্ষকের ব্যাপারে অধ্যক্ষের কাছে দু’দফা বিচার প্রার্থী হলেও তিনি এর কোনো সমাধান দেননি। যার ফলে এ শিক্ষার্থী চলমান আলিম পরীক্ষায় অংশ নেয়নি। এ জন্য ক্ষিপ্ত হয়ে সে অধ্যক্ষের সঙ্গে এরূপ আচরণ করেছে। অধ্যক্ষ মাওলানা আব্দুস সালাম আল মাদানী দু’দিন মোবাইল ফোনে তাঁকে বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে বলে স্বীকার করে জানান, বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য চেষ্টা করা হয়েছে। এ বিষয় নিয়ে গত ২৮ মার্চ মাদ্রাসায় একটি সভাও অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শিক্ষার্থী লায়লা বেগম জানিয়েছে, ২০১৮ সালের অক্টোবর মাসে শিক্ষক রাজিবুর রহমানের বাসায় কোচিং পড়তে যায় । এ সময় তার সঙ্গে অশালীন আচরণ করা হয় । তাকে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করার চেষ্টা করেন এবং বিভিন্ন ধরনের প্রলোভন দেখিয়ে কুপ্রস্তাব দেয়া হয়। পড়ে সে ওই শিক্ষকের কাছে প্রাইভেট পড়া বন্ধ করে দেয়। অধ্যক্ষের কাছে এ নিয়ে বিচার চাইলে সে কোনো বিচার পায়নি। ফলে লেখাপড়া বন্ধ করে দিয়ে আলিম পরীক্ষায় অংশ নেয়নি বলে জানান।

এ ঘটনায় শিক্ষার্থী বাদী হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়। এদিকে অভিযুক্ত ইংরেজি শিক্ষক রাজিবুর রহমানের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি অভিযোগের বিষয় অস্বীকার করে জানান, তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে।