দীঘি

সেই ছোট্ট দীঘি এখন এসএসসি পাশ

‘বাবা জানো, আমাদের একটা ময়না পাখি আছে না? সে আজকে আমার নাম ধরে ডেকেছে, আর এ কথাটা না মা কিছুতেই বিশ্বাস করছে না। আমি কী তাহলে ভুল শুনেছি, কেমন লাগে বলো তো?’

এই সংলাপ শুনেননি বা সংলাপ বলা সেই ছোট্ট অভিনেত্রীকে চেনেন না এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া দুস্কর। আর এমন মিষ্টি সংলাপ বলা সেই ছোট্ট মেয়েটিই আজ মাধ্যমিকের গণ্ডি পার হলেন!

এবার সেকেন্ডারি স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষায় অংশ নিয়েছিলেন শোবিজ অঙ্গনের কিছু তারকা মুখ। এরমধ্যে আছেন চিত্রনায়িকা পূজা চেরী ও অভিনেত্রী দীঘি।

চলতি বছরের সেকেন্ডারি স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) পরীক্ষায় অভিনেত্রী দীঘি ‘এ-মাইনাস’ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছেন। সোমবার দুপুরে ফলাফল ঘোষণার পর খবরটি চ্যানেল আই অনলাইনকে জানিয়েছেন তার বাবা ও অভিনেতা সুব্রত বড়ুয়া।

এসএসসিতে দীঘির ফলাফল জানিয়ে সুব্রত বলেন, দীঘি স্ট্যামফোর্ড স্কুল ও কলেজ থেকে এবছর এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছিলো। তার রেজাল্ট আশাব্যঞ্জক হয়নি। সে জিপিএ-৩.৬১ পেয়েছে। তারপরও এতেই আমরা খুশি। সামনে ভালো কলেজে ভর্তির চেষ্টা থাকবে।

বেশ ক’বছর ধরেই শোনা যাচ্ছিলো নায়িকা হয়ে পর্দায় ফিরবেন চাচ্চু’র সেই ছোট্ট মেয়েটি, কিন্তু এসএসসি পরীক্ষার জন্য এতোদিন পরিবার থেকে অভিনয়ে আপত্তি ছিলো।

এখনতো পরীক্ষা শেষ, তবে কি অভিনয়ে ফিরবেন দীঘি?-এমন প্রশ্নে সুব্রত বলেন, যদি সুযোগ সুবিধা মতো ভালো কিছুর প্রস্তাব আসে তাহলে অবশ্যই অভিনয় করবে। তবে এখনো চিন্তার বিষয়, কেবল এসএসসির রেজাল্ট হাতে পেলাম।

চলচ্চিত্র পরিবারের সন্তান দীঘি। তার বাবা সুব্রত বড়ুয়া ও মা প্রয়াত চলচ্চিত্র অভিনেত্রী দোয়েলের একমাত্র মেয়ে। চলচ্চিত্রে অভিনয়ের আগে গ্রামীনফোনের একটি বিজ্ঞাপনে অভিনয় করে ব্যাপক সাড়া ফেলে দিয়েছিলেন।

কাজী হায়াৎ পরিচালিত ‘কাবুলিওয়ালা’ তার অভিনীত প্রথম চলচ্চিত্র। প্রথম চলচ্চিত্রে অভিনয় করেই ২০০৬ সালে ‘শ্রেষ্ঠ শিশুশিল্পী’ হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন তিনি। এরপর দাদীমা, চাচ্চু, বাবা আমার বাবা, ১ টাকার বউ ও অবুঝ শিশুর মতো চলচ্চিত্রে অভিনয় করে দর্শক মনে জায়গা করে নেন।